রঙ বাক্স

জ্যামাইকান ক্যাস্টর ওয়েলের উপকারিতা | প্রোডাক্ট রিভিউ

ত্বক, চুল এবং ইমিউন সিস্টেমের জন্য ক্যাস্টর ওয়েলের উপকারিতা অনেক আগে থেকে পরিচিত। ক্যাস্টর ওয়েল সারা বিশ্বে নিরাময় ও বিশুদ্ধতার তেল হিসেবে ব্যবহার করা হয়, তবে অনেক মানুষ জানে না যে একাধিক রকমের ক্যাস্টর ওয়েল আছে। বাজারের রিফাইন্ড হাল্কা হলুদ রঙের ক্যাস্টর ওয়েল ছাড়াও আরেকটি সারা বিশ্বব্যাপী জনপ্রিয় কালো রঙের ওরগানিক ক্যাস্টর ওয়েল আছে যা জ্যামাইকান ক্যাস্টর ওয়েল নামে পরিচিত।
বিশ্ববিখ্যাত সানি আইলের তৈরি আসল জ্যামাইকান ব্ল্যাক ক্যাস্টর ওয়েল চুলের বিশেষ পরিচর্যার জন্য আমেরিকার বিশেষগজ্ঞ দ্বারা একটি পরীক্ষিত এবং প্রমাণিত পন্য। এটি সবধরনের চুলে অবিশ্বাস্য ফলাফল দেয়।
সানি আইলের ওরগানিক ক্যাস্টর বীজের নির্যাস থেকে সংগ্রহ করা হয় “পিওর ডার্ক ব্রাউন অর্গানিক ওয়েল”। এতে ক্যাস্টর বীজের ছাই মিশ্রিত থাকে যা তেলের কার্যকারিতাকে আরও বৃদ্ধি করে। এটি চুলের জন্য বাজারের শ্রেষ্ঠ তেল হিসেবে বিশ্ববিখ্যাত। এটি বাজারের অন্যান্য রিফাইন্ড ক্যাস্টর ওয়েলের থেকে অনেক বেশি বিশুদ্ধ এবং কার্যকর।
এটি নিয়মিত ব্যাবহারে আপনার চুল পড়া বন্ধ হবে এবং নতুন চুল গজাবে।এটি আপনার রুক্ষ এবং ক্ষতিগ্রস্থ চুলের গোড়া থেকে আগা পর্যন্ত বিশেষ ভাবে আদ্র করে তোলে। আপনার মাথার ত্বক কে গভীর থেকে আদ্র করে তোলার কারণে মাথার ত্বক থাকে মসৃন এবং খুশকি মুক্ত। চোখের পাপড়ি দীর্ঘ করার এবং ভ্রূর ঘনত্ব বৃদ্ধিতে এটি সারা বিশ্বে সমাদৃত।

বৈশিষ্ট এবং উপকারিতাঃ
১। সম্পূর্ণ নির্ভেজাল অর্গানিক ক্যাস্টর ওয়েল তৈরি হয় জ্যামাইকান ঐতিহ্যবাহী পদ্ধতিতে।
২। চুল পড়া বন্ধ করে।
৩। সব ধরনের চূল নতুন ভাবে গজাতে সহযোগিতা করে।
৪। মাথার যেসব অংশে টাক পড়ে গিয়েছে সেসব অংশে নতুন চুল গজাতে সাহায্য করে।
৫। চোখের ভ্রূ অথবা পাপড়িতেও ব্যাবহার করা হয়।
৬। চুলকে করে তোলে খুশকি এবং জটমুক্ত।
৭। চুল এবং ত্বকের আদ্রতা বৃদ্ধিতে বিশেষ ভাবে কাজ করে।
৮।চুলের আগা ফাটা রোধ করে।
৯। চুলের প্রয়োজনীয় পুষ্টি প্রদান করে চুল করে তোলে মজবুত,ঘন এবং চকচকে।
১০। এই তেলে কোন লবণ ব্যবহার করা হয়না।
১১। সানি আইল জ্যামাইকান ব্ল্যাক ক্যাস্টর ওয়েলই হচ্ছে জ্যামাইকান সরকার কতৃক স্বীকৃত একমাত্র তেল, যা সম্পূর্ণ নিরাপদ সীল করা বোতলে সরবারহ করা হয় আপনার নিরাপত্তার জন্য।

কীভাবে ব্যবহার করতে হয়:
জ্যামাইকান ব্ল্যাক সিরিয়াল তেল ব্যবহার করা খুব সহজ,। আপনার চুল আরও সুন্দর করার জন্য যদি এটি ব্যবহার করতে চান, তবে অল্প পরিমাণে তেল নিয়ে আপনার চুলে এবং স্কাল্পে আঙ্গুলের সাহায্যে ম্যাসেজ করুন। এটি নারিকেল তেলের সাথে মিশিয়েও ব্যবহার করা যায় তবে সেক্ষেত্রে নারিকেল তেলটি হতে হবে শতভাগ বিশুদ্ধ। সর্বোত্তম ফলাফলের জন্য প্রতি রাতে এই প্রক্রিয়াটি পুনরাবৃত্তি করুন। যদিও আপনি অ্যাপ্লিকেশন ফ্রিকোয়েন্সি সপ্তাহে তিন থেকে চার বারে হ্রাস করতে পারেন।যদি আপনার হাতে একটু বেশি সময় থাকে, আপনি এটিকে একটি হট অয়েল ট্রিটমেন্টে হিসেবেও প্রয়োগ করতে পারেন।

কোথায় পাবেনঃ অরিজিনাল জ্যামাইকান ব্ল্যাক ক্যাস্টর ওয়েল পাবেন Shoppers’ Bay.co.uk তে, মূল্যঃ ১১০০ টাকা।

প্রোডাক্ট রিভিউ দিয়েছেনঃ এষনা আহমেদ

আমাদের আরো অন্যান্য লেখা পড়ুন ফেইসবুক পেইজ হুতুমপেঁচা ম্যাগাজিন-এ।